টেক টকট্রেন্ডিং খবরপ্রযুক্তিহোমপেজ স্লাইড ছবি

ইন্টারনেট: যে জালে সবাই বন্দী

আমি চিনি গো চিনি তোমারে, ওগো বিদেশিনী”। সময়ের সাথে সাথে শুধুমাত্র যে মানুষই স্মার্ট হচ্ছে তা নয়,স্মার্ট হচ্ছে প্রযুক্তি, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা, মেশিন লার্নিং, ডাটা সায়েন্স, রোবট, ক্লাউড কম্পিউটিং, সাইবার ক্রাইম এবং সাইবার সিকিউরিটি । আসি এবার মূল গল্পে- যখনই আপনি কোন আধুনিক ওয়েবসাইট ভিজিট করেন ঐ সাইট কিছু অদৃশ্য ডিজিটাল মার্কিং ফাইল আপনার কম্পিউটার অথবা মোবাইল ফোনে রাখে, যাকে আমরা কুকিজ(cookies) বলে থাকি।

এই ছোট্ট ডিজিটাল কুকি্জ ফাইল দিয়েই আপনাকে এবং আপনার সকল ডিজিটাল এক্টিভিটিকে ট্র্যাক করা সম্ভব। এছাড়াও আপনার সকল ডিজিটাল ডিভাইসেরই একটা ইউনিক আইডেন্টিটি নাম্বার রয়েছে যা দিয়ে তোমাকে সহযেই ট্র্যাক করা এবং নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করা সম্ভব। ডিজিটাল আইডেন্টিফায়ার, যেমন- কম্পিউটার নেটওয়ার্ক এর ইন্টানেট প্রোটোকল(IP) এড্রেস, ওয়াই-ফাই নেটওয়ার্ক কার্ডের মিডিয়া এক্সেস কন্ট্রোল নাম্বার(MAC) এবং মোবাইল ফোনের আইএমইআই(IMEI) নাম্বার, এই সব দিয়েই কোন অনলাইন কোম্পানি সহজেই বুঝতে পারে কি ধরনের ডিভাইস(এবং ব্যবহারকারী) তাদের সার্ভিস গুলো ব্যবহার করছে।

এইসব ডাটা একত্রিত করে নজরদারিতে রাখা হয় যা দিয়ে ইন্টারনেট ভিত্তিক কোম্পানিগুলো এবং তাদের বিজ্ঞাপনদাতারা আপনার উপর এবং আপনার সকল অনলাইন এক্টিভিটির উপর দীর্ঘস্থায়ী নজর রাখতে পারে। ২০১২ সালে ওয়াল স্টিট জার্নালের এক গবেষণায় দেখা যায় বর্তমান সময়ের দ্রুত বর্ধনশীল ব্যবসার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে- ‘ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের তথ্য চুরি করা’। তাদের রিপোর্টে দেখা যায় ওয়াল্ডের জনপ্রিয় সব ওয়েবসাইটই গড়ে ৬৪টা কুকি ফাইল রাখে ব্যবহারকারীদের ডিভাইসে যা দিয়ে বিজ্ঞাপনদাতারা সহজেই কারো এক্টিভিটি নজরদারিতে রাখতে পারে।

তাই এইসব কুকি ফাইল কারো অনলাইন এক্টিভিটির সকল তথ্য জমা করে বিক্রি করে দিচ্ছে বিজ্ঞাপনদাতাদের হাতে আর তাই আমরা আমাদের যেসব পছন্দ অপছন্দ কখনোই পাবলিক করতে চাই না সেগুলোও জেনে যাচ্ছে বিজ্ঞাপন কোম্পানিগুলো। এর একটা সহজ উদাহরণ হচ্ছে- আপনি যদি ফেইসবুক অথবা গুগলে বিশেষ কোন খাবার অথবা ইলেকট্রনিক্স খুঁজেন দেখবে্ন ফেইসবুক এবং গুগল তোমাকেই ঐসব খাবার বা ইলেকট্রনিক্সের বিজ্ঞাপনই দেখাচ্ছে।

  • বি. কে. আহমেদ

Related Articles

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker