ট্রেন্ডিং খবর

আলোচনায় এবার #HimToo

শিক্ষকদের বিরুদ্ধে ছাত্রীদের, নিয়োগকারীর বিরুদ্ধে নিযুক্তের অভিযোগের তীর যেন কেবলই ধেয়ে আসছে। কাজের জায়গায় বিশেষ করে পুরুষ নিয়ন্ত্রিত কাজে নিজস্ব ক্ষমতার অপব্যবহার করে, কখনও ভয় দেখিয়ে মেয়েদের প্রতি যারা অন্যায় যৌনাচারণ করেছেন, হঠাৎই যেন #MeToo আজ সেই সব নামী দামী ব্যক্তিদেরও কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে দিচ্ছে। এবং শাস্তি ও নেমে আসছে কারো কারো ওপর।
প্রায় ১০ বছর আড়ালে থাকা সাবেক মিস ইন্ডিয়া তনুশ্রী দত্ত সম্প্রতি অভিনেতা নানা পাটেকারের বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়ন ও হামলার অভিযোগ এনে ভারতে #MeToo আন্দোলনের সূচনা করেন।
এরপর থেকেই করে বলিউডে #MeToo এর প্রভাব পড়ে ব্যাপকভাবে। চলচ্চিত্রের নায়ক, প্রযোজক, পরিচালক, অভিনেতা থেকে অনেকের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে। নড়ে চড়ে বসতে বাধ্য হচ্ছে সব শ্রেণিপেশার মানুষ।
এর ফলে নারীর যৌন নিপীড়নের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ যেমন হচ্ছে ঠিক তেমনি কখনো কখনো
যৌন নিপীড়নের মিথ্যা অভিযোগে অভিযুক্ত হচ্ছে নির্দোষ পুরুষ!আর এর প্রতিবাদে পুরুষরা ও গড়ে তুলছে
এক আন্দোলন  #HimTo
বিশ্বজুড়ে যখন #MeToo নিয়ে আলোচনা চলছে, তখন এর বিপরীতে আরেকটি আন্দোলন মাথাচাড়া দিতে শুরু করেছে যার নাম দেয়া হয়েছে #HimToo। নারীদের পরেই এবার পুরুষেরা বিভিন্ন সময় যৌন হয়রানির মিথ্যা অভিযোগে ফেঁসে যাওয়ার ঘটনা নিয়ে চালু করেছেন এই #HimToo
#MeToo এর মত এই #HimToo এর আত্মপ্রকাশ ও যুক্তরাষ্ট্র থেকে।
 
কিছুদিন আগে যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্টের বিচারক হিসেবে নিয়োগ পেয়েছেন ব্রেট কাভানি। তাঁর বিরুদ্ধে উঠেছিল যৌন হয়রানির অভিযোগ। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সেই অভিযোগ্মিথ্যা প্রমাণিত হয়। দেশটির সুপ্রিম কোর্টের বিচারক হিসেবে যোগ দেন কাভানি।
ঠিক এই ঘটনার সূত্র ধরেই মার্কিন মুলুকে নতুন আন্দোলনের সূত্রপাত হয়। এত দিন নারীরা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে যৌন হয়রানির শিকার হওয়ার ঘটনা প্রকাশ করেছেন #MeToo দিয়ে। এবার নতুন শব্দ নিয়ে হাজির হয়েছেন পুরুষেরা। যৌন হয়রানির মিথ্যা অভিযোগে ফেঁসে যাওয়ার ঘটনা নিয়ে সরব হয়েছেন তাঁরা। সেই সঙ্গে চালু হয়েছে #HimToo
 
সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে একটি পোস্ট দেন জনৈক পিটার হ্যানসনের মা। ৩২ বছর বয়সী ছেলের পক্ষ নিয়ে তিনি লেখেন, #MeToo এর জোয়ারে এখন ডেটিংয়ে যেতে ভয় পাচ্ছেন পিটার! তিনি মনে করছেন, এতে করে যৌন হয়রানির মিথ্যা অভিযোগের শিকার হওয়ার আশঙ্কা আছে।
সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পোস্টটি খুব কম সময়ের মধ্যেই ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়েছে। এখন অনেকেই এ নিয়ে আলোচনা করছেন। কেউ কেউ আবার ঠাট্টা-মশকরাও করছেন।

Related Articles

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker