ছুটিহোমপেজ স্লাইড ছবি

মেঘের মায়ায় ঘুরে আসুন সাজেক ভ্যালি

মৃন্ময়ী মোহনা:

‘দূরে থাকা মেঘ তুই দূরে দূরে থাক
যতটুকু পারা যায় সামলিয়ে রাখ…’

না! মেঘকে আর দূরে রাখতে হবেনা, একেবারে মেঘের কোলে দুলে দুলে জীবনের কয়টা দিন কাটানোর সুযোগ আছে আমাদের অপূর্ব এই বাংলাদেশে। যেখানে গিয়ে আর মেঘকে সামলানো যাবেনা, সামলানো যাবেনা নিজেকেও। বলছিলাম, মেঘের রাজ্য সাজেক ভ্যালির কথা। রাঙামাটি জেলায় যার অবস্থান। এর চোখজুড়ানো মেঘ আর পাহাড়ের সৌন্দর্যের কারনে ভ্রমণপ্রিয় মানুষদের কাছে এটি পরিণত হয়েছে একটি পছন্দের জায়গায়।

কীভাবে যাবেন

সাজেক ভ্যালি যাওয়ার সহজ উপায় খাগড়াছড়ির দিঘীনালা থেকে চান্দের গাড়ির মাধ্যমে। দিনে গিয়ে দিনেই ফিরে আসা যায় সাজেক থেকে। দীঘিনালা আর্মি ক্যাম্প ও বাঘাইহাট আর্মি ক্যাম্প থেকে সাজেক যাওয়ার অনুমতি নিতে হয়।

কী কী দেখবেন 

যাওয়ার পথে পড়বে কাসালং ব্রিজ, রুইলুই পাড়া। তারপরই আসবে সাজেক। সাজেকের বিজিবি ক্যাম্প বাংলাদেশের সর্বোচ্চ বিজিবি ক্যাম্প। এখানে একটি হেলিপ্যাডও রয়েছে। তার সাথে পাহাড়ের সৌন্দর্য তো আছেই। সাজেকের শেষ গ্রাম কংলাক পাড়া। যেখান থেকে দেখা যায় ভারতের লুসাই পাহাড়।

সাজেকের রুইলুই পাড়া থেকে ৩ ঘন্টার ট্রেকিং এর পর দেখা মেলে কমলক ঝর্ণার। স্থানীয়দের কাছে যা পিদাম তৈসা বা সিকাম তৈসা নামে পরিচিত।এছাড়া সাজেক থেকে ফেরার পথে ঘুরে আসা যায় হাজাছড়া ঝর্ণা, দিঘীনালা ঝুলন্ত ব্রিজ এবং বনবিহার থেকে।

কোথায় থাকবেন

খাগড়াছড়িতে পর্যটন মোটেল সহ বিভিন্ন মানের, ছোট/বড় হোটেল রয়েছে। এছাড়া সাজেকে গড়ে উঠেছে অনেক রিসোর্ট। আদিবাসীদের বাড়িতেও থাকার সুযোগ আছে। তবে, মেঘের সৌন্দর্য খুব কাছ থেকে দেখতে হলে মেঘ মাচাং রিসোর্টটি অন্যগুলোর তুলনায় ভালো। যোগাযোগের ঠিকানা:০১৮২২১৬৮৮৭৭

খরচ

ঢাকা থেকে খাগড়াছড়ি পর্যন্ত বাস ভাড়া ৫০০-৬০০ টাকার মধ্যে। সেইন্টমার্টিন পরিবহন, শ্যামলি পরিবহন, শান্তি পরিবহন প্রভৃতি বাস ঢাকা থেকে খাগড়াছড়ি যায়। খাগড়াছড়ির দিঘীনালা থেকে একদিনের জন্য চান্দের গাড়ির রিজার্ভ ভাড়া ৫০০০-৬০০০/- টাকা। দুইরাতের জন্য ভাড়া ১০০০০-১৩০০০ টাকার মধ্যে।

তাহলে আর দেরি কেন? মেঘের রাজ্যে হারিয়ে যেতে ব্যাগ কাঁধে বেরিয়ে পড়ুন সাজেকের উদ্দেশ্যে।

Related Articles

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker