রোববার, ২২ এপ্রিল ২০১৮
Thu, 12 Apr, 2018 10:02:43 PM
নতুন বার্তা ডেস্ক
ঢাকা: নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের প্রধান প্রকৌশলী এ কে এম ফখরুল ইসলামকে ঘুষের টাকাসহ হাতেনাতে আটক করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। ১৮ জুলাই মঙ্গলবার দুপুর দু্ইটায় রাজধানীর মতিঝিল এলাকায় নিজ কার্যালয় থেকে ঘুষ নেবার সময় তাকে আটক করা হয়।
 
দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ফখরুল ইসলাম ঘুষ লেনদেন করবেন এমন তথ্য জানতে পেরে দুদকের কর্মকর্তারা আশপাশে ওৎ পেতেছিলেন। দুপুর দু্ইটার দিকে ৫ লাখ টাকা ঘুষ নেওয়ার সময় ফখরুলকে গ্রেফতার করেন তারা।
 
আটক ফখরুল ইসলামকে মতিঝিল থানায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান প্রণব কুমার।
 
দুদক সূত্র জানায়, মেসার্স সৈয়দ শিপিং লাইন্সের এমভি প্রিন্স অব সোহাগ নামের যাত্রীবাহী নৌযানের রিসিভ নকশা অনুমোদন এবং নতুন নৌযানের নামকরণের অনাপত্তি পত্র প্রদানের জন্য এ প্রধান প্রকৌশলীর নিকট গেলে তিনি ১৫ লাখ টাকা ঘুষ দাবি করেন। সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি বিষয়টি দুর্নীতি দমন কমিশনে অবহিত করলে, কমিশন সকল বিধি-বিধান অনুসরণ করে কমিশনের ঢাকা বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক নাসিম আনোয়ারে সার্বিক নের্তৃত্বে ফাঁদ মামলা পরিচালনার অনুমতি দেয়।
 
অনুমতি সাপেক্ষে আজ বিকালে ঘুষের দ্বিতীয় কিস্তি বাবদ ৫ লাখ টাকা রাজধানীর সেগুনবাগিচার হোটেলে বসে যখন প্রধান প্রকৌশলী নাজমুল হক গ্রহণ করছিলেন, ঠিক তখনই ওঁৎ পেতে থাকা দুদকের বিশেষ টিমের সদস্যরা ঘুষের ৫ লাখ টাকাসহ তাকে হাতে-নাতে গ্রেফতার করে।
 
এর মধ্য থেকে তিনি পাঁচ লাখ টাকা আগেই নিয়েছিলেন। দ্বিতীয় কিস্তির পাঁচ লাখ টাকা নিতে গিয়ে দুদকের ফাঁদে পড়লেন তিনি।
 
রাজধানীর রমনা মডেল থানায় দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয় ঢাকা-১ এর সহকারী পরিচালক আবদুল ওয়াদুদ বাদী হয়ে এ বিষয়ে মামলা দায়ের করবেন। বাসস
 
নতুন বার্তা/এফকে
 
 

 


Print
আরো খবর
    সর্বশেষ সংবাদ


    শিরোনাম
    Top