বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮
webmail
Sat, 03 Feb, 2018 11:43:29 PM
নিজস্ব প্রতিবেদক
নতুন বার্তা ডটকম
ঢাকা: বাংলা ভাষার কিছু শব্দ এখন আর ব্যবহৃত হচ্ছে না। যেগুলো আগে কথায় এবং লেখায় ছিল বহুল ব্যবহৃত। সেই শব্দগুলোকে তরুণ প্রজন্মের কাছে পরিচিত করে তুলতে এবং ব্যবহারে উৎসাহিত করতে মাসব্যপী কার্যক্রম হাতে নিয়েছে কোকা-কোলা বাংলাদেশ। শনিবার সকালে রাজধানীর বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রে মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে ‘নিখোঁজ শব্দের খোঁজে’ শীর্ষক এই কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন ঘোষনা করা হয়।
 
বাংলা ভাষায় কিছু শ্রুতিমধুর ও সমৃদ্ধ শব্দ সময়ের প্রবাহে এখন আর ব্যবহৃত হচ্ছে না। সেই শব্দগুলো ব্যবহারে উৎসাহিত করা এবং চর্চা বৃদ্ধি করা এই কার্যক্রমের প্রধান উদ্দেশ্য। কোকা-কোলা এই উদ্যোগের মাধ্যমে হারিয়ে যাওয়া শব্দ সর্ম্পকে জনসচেতনতা তৈরি করবে। মানুষের স্বতস্ফূর্ত অংশগ্রহণের মাধ্যমে শব্দগুলোকে জনপ্রিয় করে তুলতেই এই আয়োজন। পুরো কার্যক্রমের তত্ত্বাবধান করবেন, বিশিষ্ট লেখক ও শিক্ষাবিদ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এমিরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান; ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ভীষ্মদেব চৌধুরী এবং জনপ্রিয় লেখক ও ঔপন্যাসিক আনিসুল হক।  
 
কার্যক্রম চলাকালে কোকা-কোলার বোতলে অব্যবহৃত বাংলা শব্দগুলো অর্থসহ দেখা যাবে, যেগুলো একসময় আমাদের লেখা ও কথার নিয়মিত অংশ ছিল। অনুশীলনের অভাবে সময়ের প্রবাহে আজ যে শব্দগুলো প্রচলিত নয়। শোভাযাত্রা, প্রচারপত্র, দেয়াল লিখন এবং কুইজসহ আরও অনেক আয়োজন থাকবে। এছাড়াও এই কার্যক্রমের  জন্য একটি ওয়েবসাইট িি.িপড়পধ-পড়ষধ.পড়স.নফ/২১ চালু করা হয়েছে। সেখানে বাংলা শব্দ নিয়ে মজার খেলা ও কুইজের আয়োজন থাকবে যেখানে যে কেউ অংশগ্রহন করতে পারবেন এবং পুরস্কার জিততে পারবেন। নিখোঁজ শব্দের এই ভান্ডারকে আরো সমৃদ্ধ করার জন্যে অংশগ্রহণকারীদের ওয়েবসাইটটিতে হারিয়ে যাওয়া বা কম ব্যবহৃত বাংলা শব্দগুলো জমা দেয়ার জন্যে উৎসাহীত করছে কোকা-কোলা। কার্যক্রমের শেষ প্রান্তে ওয়েবসাইটে জমা হওয়া নিখোঁজ শব্দগুলোকে জড়ো করে একটি বই প্রকাশ করা হবে এবং বিজয়ীদের পুরস্কৃত করা হবে। এছাড়াও অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০১৮-এ বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গনে রয়েছে কোকা-কোলা এর স্টল। যেখানে হারিয়ে যাওয়া শব্দ নিয়ে বিভিন্ন খেলা এবং নিখোঁজ বাংলা শব্দ জমা দেওয়ার ব্যবস্থা থাকছে।
 
 
 
 
 
 
 
বাংলা ভাষা নিয়ে বাংলাদেশের সরকারি ও বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে তিন দিনব্যপী উৎসবের আয়োজন করা হবে। এই উৎসবে হারিয়ে যাওয়া শব্দ নিয়ে থাকছে কুইজ, নিখোঁজ শব্দ জমা দেওয়ার খেলা এবং উৎসব শেষ হওয়ার দিন থাকছে মঞ্চ নাটক। ২০টি সরকারি ও বেসরকারি বিশ^বিদ্যালয় ছাড়াও বাংলা একাডেমির আব্দুল করিম সাহিত্য বিশারদ মিলনায়তন ও শিল্পকলা একাডেমি’র জাতীয় নাট্যশালায় মঞ্চায়ণ করা হবে হারিয়ে যাওয়া বাংলা শব্দ নিয়ে রচিত একটি নাটক।
 
অনুষ্ঠানে কোকা-কোলা বাংলাদেশ লিঃ এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর শাদাব খান বলেন, বিগত তিন বছর আমরা মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে প্রচারনার আয়োজন করি এবং আপনাদের সকলের কাছ থেকে অনেক উৎসাহ পেয়েছি। এবছর আমরা বাংলা ভাষার হারিয়ে যাওয়া শব্দকে আমাদের তরুনদের সামনে তুলে ধরে আবার সেগুলোকে সবার মাঝে ফিরিয়ে আনার জন্য আয়োজন করেছি - ‘নিখোঁজ শব্দের খোঁজে’ -হাতে থাকুক কোকা-কোলা, চলুক নিখোঁজ শব্দের খোজ।
 
তিনি বলেন, এদেশের ৫০ শতাংশ মানুষ তরুন এবং এই তরুণের হাত ধরেই বাংলাদেশ তার ভবিষ্যতকে আলিঙ্গন করবে। আর তাই তরুণদের উদ্বুদ্ধ করতেই কোকা-কোলা এই উদ্যোগ নিয়েছে। আমাদের পন্যগুলো তরুণরা সব সময় পছন্দ করে এবং কোকা-কোলা ব্র্যান্ডটি সবসময় পেয়েছে তাদের ভালোবাসা । বর্তমানে যে সকল মাধ্যমে তরুনদের পদচারনা ও উপস্থিতি রয়েছে, সে সকল মাধ্যমেই এ ক্যাম্পেইনটি চালিত হবে। এবং আমরা আশাবাদী যে তাদের অংশগ্রহনে এই নিখোঁজ শব্দের খোঁজে ক্যাম্পেইনটি ব্যাপ্তি পাবে এবং হারানো বাংলা শব্দগুলো হয়তো আমরা আবার ফিরে পাবো আমাদের প্রতিদিনের জীবনে।
 
নতুনবার্তা/কিউএমএইচ

Print
আরো খবর
    সর্বশেষ সংবাদ


    শিরোনাম
    Top
    close