শুক্রবার, ১৮ আগস্ট ২০১৭
webmail
Thu, 28 Nov, 2013 11:05:41 AM
আ হ ম ফয়সল, ম্যানিলা (ফিলিপাইন) থেকে:

প্রথম বাংলাদেশী হিসেবে বেসরকারি সংস্থা ডরপ এর প্রতিষ্ঠাতা ও সেক্রেটারি জেনারেল এ এইচ এম নোমান গুসি পিস প্রাইজ ইন্টারন্যাশনাল এওয়ার্ড-২০১৩ গ্রহণ করেছেন।

২৭ নভেম্বর বুধবার রাতে তিনি ফিলিপাইনের রাজধানী ম্যানিলায় অবস্থিত ম্যানিলায় আন্তর্জাতিক কনভেনশন সেন্টারে গুসি পিস প্রাইজ ফাউন্ডেশন প্রদত্ত এওয়ার্ড গ্রহণ করেন।
 
এওয়ার্ড প্রদান করেন গুসি পিস প্রাইজ ইন্টারন্যাশনালে চেয়ারম্যান ভ্যারি এস. গুসি। এ সময় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সিনেটর এমানুল জন, গুসি পিস প্রাইজের চিকিৎসা টিমের সভানেত্রী ডা. ইভিলিন টানতামকো গুসি, ফাউন্ডশনের বোর্ড অব ট্রাস্ট্রি, প্রাক্তন এওয়ার্ডি, আন্তর্জাতিক কমিটির সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রায় পাঁচ হাজার অতিথির উপস্থিতিতে অনাড়ম্বর এ অনুষ্ঠানে ফিলিপাইনস্থ বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মেজর জেনারেল (অব.) জন গোমেজ, বৈদেশিক সাহায্যপুষ্ট প্রকল্পের অডিট অধিদফতর বাংলাদেশের মহাপরিচালক এ কে এম জসিম উদ্দিন এফসিএমএ, পাগ-আশার আঞ্চলিক ম্যানেজার মোহাম্মদ আখতারুজ্জামানসহ ২৭ জন বাংলাদেশী উপস্থিত ছিলেন।  

দারিদ্র বিমোচন ও মানবহিতৈষী কাজে অবদান রাখার জন্য উন্নয়ন ও মানবাধিকার সংগঠক এএইচএম নোমান এ বছর বাংলাদেশের প্রথম ব্যক্তি হিসেবে এই সম্মানজনক এওয়ার্ড অর্জন করেন।
 
অনুষ্টানে এ বছর আরো ১৬ জনকে গুসি পিস প্রাইজ ইন্টারন্যাশনাল এওয়ার্ড ২০১৩ প্রদান করা হয়। তারা হলেন- দর্শণে আলজেরীয়ার প্রফেসর ড. আব্দেল মজিদ এমরানী, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে বেলজিয়ামের প্রফেসর ড. রাউয়েল এ ওয়েলার, মানবাধিকার এডভোকেসিতে নাইজেরীয়ার কেথেরীন ডিউপ এটোকী, রাষ্ট্র পরিচালনায় দক্ষতায় তিনজন এসতুনিয়ার সাবেক রাষ্ট্রপতি আরনল্ড রুতেল, সুদানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী আল সাদিগ আবদেল রহমান আল মাহদী, মৌরিসাসের রাষ্ট্রপতি রাজ কেস উর উরিয়েগ, রাষ্ট্র পরিচালনা ও শিক্ষায় রোমানীয়ার সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রফেসর ড. ইমিল কনসটানটিন এস কো, স্থাপত্য ও শিক্ষায় ফিলিপাইনের স্থপতি ইউলান্দা ডি রিইস, সমাজসেবা ও মানবহিতৈষী কাজে সৌদিআরবের প্রিন্স বন্দর বিন খালিদ আল ফয়সল আল সৌদ, মানবমুক্তি দর্শণে আমেরিকার ড. গ্লেন টি মার্টিন, বিজ্ঞান দর্শণে রাশিয়ার প্রফেসর ড. ইগোর আই কনড্রশিন, শিল্পকলা ও মানবহিতৈষী কাজে সিরিয়ার মালেক জান্দালী, অর্থনীতি কৌশল গবেষণা ও কূটনীতিতে তুরস্কের সাবেক রাষ্ট্রদূত ড. ওরহান গাভেনেন, আন্তর্জাতিক মানবাধিকার ও জনহিতকর কর্মে গাম্বিয়ার ড. আবুবক্কর আব্দুল্লাহ সেনঘোর, সহিত্যে ফ্রান্সের জেরোমী বিন্দে ও স্বদেশী অধিকারে আলজেরীয়ার ফারহাত মেহেন্নী।
   
জনাব নোমান জাতীয় এনজিও ডর্‌প এর মাধ্যমে গরীব মাদের জন্য মাতৃত্বকালীন ভাতা প্রদান কার্যক্রমের উদ্ভাবক ও অনুশীলক (মে ২০০৫), যা বাংলাদেশ সরকার সারা দেশে বাস্তবায়ন করছে। এ ছাড়া ২০ বছর এক প্রজন্ম মেয়াদে দারিদ্র্য বিমোচনে মাতৃত্বকালীন ভাতা কেন্দ্রিক স্বপ্ন প্যাকেজ কার্যক্রমের উদ্যোক্তা। দরিদ্র মাদের মৌলিক অধিকার রক্ষায় সামাজিক বিনিয়োগ করে পাবলিক পূয়র প্রাইভেট পার্টনারশিপ-পিপিপিপি এর মাধ্যমে মা সংসদ প্লাটফরম পাইলট বাস্তবায়নকারী।

এ কার্যক্রম বাস্তবায়ন করায় ইতিমধ্যে তিনি মাতৃবন্ধু উপাধিতে ভূষিত হয়েছেন। তিনি নির্বাচন তত্ত্বাবধায়ক পরিষদ ও স্বাস্থ্যগ্রাম কার্যক্রম এর প্রবক্তা। এ ছাড়া তিনি ২০০৯ সালে জেলা সমাজ কল্যাণ পরিষদ কর্তৃক উপকূলীয় লক্ষ্মীপুর জেলার শ্রেষ্ঠ সমাজকর্মী নির্বাচিত হন।

নতুন বার্তা/জিহ


Print
আরো খবর
    সর্বশেষ সংবাদ


    শিরোনাম
    Top