বিদেশ

একটি মেসেজেই বিপন্ন হতে পারে মানব সভ্যতা!

এই নীল রংয়ের গ্রহে মানুষই সেরা জীব। কিন্তু এই মানব সভ্যতাই হয়ে যেতে পারে বিপন্ন। পৃথিবী থেকে তাদের কর্তৃত্ব হারাতে পারে মানুষ! পরমাণু বোমা বা দূষণ কিংবা গ্লোবাল ওয়ার্মিং— নানা কারণের কথা বিভিন্ন সময়ে শোনা গেলেও এ বার বিজ্ঞানীরা শোনাচ্ছেন একেবারে অন্য আশঙ্কার কথা। জানাচ্ছেন, ভিনগ্রহীদের পাঠানো বার্তার মধ্যেই লুকিয়ে থাকতে পারে পৃথিবীর জন্য বড় বিপদের বীজ। অসতর্ক হলেই বিপন্ন হতে পারে সভ্যতা!

এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস টাইমস-এ প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, ইন্টারস্টেলার কমিউনিকেশন নামের এক গবেষণাপত্রে তেমনটাই জানিয়েছেন গবেষকরা। জার্মানির সোনবার্গ অবজার্ভেটরির বিজ্ঞানী মাইকেল হিপকে ও হাওয়াই বিশ্ববিদ্যালয়ের উচ্চশক্তির পদার্থবিদ্যার অধ্যাপক জন জে লিয়েনার্ড যৌথভাবে এই বিষযে গবেষণা চালিয়ে গবেষণাপত্রটি রচনা করেছেন।

তাঁরা জানাচ্ছেন, বহির্বিশ্বে নানা রকমের সভ্যতা থাকতে পারে। হতেই পারে তাদের অনেকেই বন্ধুভাবাপন্ন। আবার শত্রুতার মনোভাব নিয়েও অনেকে যোগাযোগের চেষ্টা করতে পারে। তাই ভিনগ্রহীদের তরফ থেকে কোনও রকম সাড়া পেলে যেন ভাল করে ভেবে দেখা হয় খোলার আগে। এ ব্যাপারে কোনও ঝুঁকি নেওয়া উচিত হবে না।

তাঁদের মতে, ভিনগ্রহীদের পাঠানো জটিল বার্তাকে পড়ার জন্য কম্পিউটার ছাড়া গতি নেই। সেক্ষেত্রে তেমন কোনও মেসেজকে খুলতে গেলে টেকনিক্যাল ঝুঁকি তো থাকছেই। কোনও বিপজ্জনক ভাইরাস পাঠিয়ে পৃথিবীর সমস্ত কম্পিউটারকে ধ্বংস করে টেলি যোগাযাগকে মুহূর্তে বড়সড় ধাক্কা দিতেই পারে ভিনগ্রহের শত্রুবেশী ইটিরা।

ওই গবেষণাপত্রে বলা হয়েছে, হয়তো এত কিছু না করে খুব সরল বার্তা পাঠানো হল— আমরা তোমাদের সূর্যকে আগামীকালই ধ্বংস করে দেব। তারা সত্যিই তেমন কিছু করতে পারুক বা না পারুক, এতে যে পৃথিবীব্যাপী ভয়াবহ আতঙ্কস্রোত তৈরি হবে, তাতে সন্দেহ নেই।

তবে এর চেয়েও বড় বিপদ হতে পারে। মানুষ এই পৃথিবীর সবচেয়ে বুদ্ধিমান প্রাণী। সে নিজের বুদ্ধির জোরেই এই পৃথিবীর শাসক। বিজ্ঞানীদের আশঙ্কা, হতেই পারে ইটিরা কোনও এআই বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা সম্পন্ন মেসেজ পাঠাল। সেই বুদ্ধিমান প্রোগ্রাম কিন্তু নিমেষে মানুষকে বড়সড় চ্যালেঞ্জ জানাতে পারে। হতেই পারে সেই এআই জানাল, তারা ক্যানসার সারিয়ে দেবে বা এই রকমই কোনও চমকপ্রদ দাবি করল। সেক্ষেত্রে সেই মিথ্যের ফাঁদ পেতে তারা মানুষকে বিরাট ঝুঁকির সামনে ফেলে দিতে পারে।

নতুন বার্তা/এমআর

Related Articles

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker