বিদেশ

পার্লামেন্টে ভোটাভুটি বন্ধ করতে টিয়ারগ্যাস নিক্ষেপ

মন্টিনিগ্রোর সঙ্গে স্বাক্ষরিত একটি সীমান্ত চুক্তির ওপর ভোটাভুটি বন্ধ করতে কসোভোর পার্লামেন্টে টিয়ারগ্যাস নিক্ষেপ করা হয়েছে। সরকারের নিরাপত্তা বাহিনী এই গ্যাস নিক্ষেপ করেনি বরং বিরোধীদলের পক্ষ থেকে এ কাজ করা হয়েছে।

কসোভোর বিরোধী দল সেল্ফ-ডিটারমিনেশন মুভমেন্ট পার্টি বুধবার পার্লামেন্ট অধিবেশনের মধ্যে হঠাৎ করে একের পর এক টিয়ারগ্যাস নিক্ষেপ করতে থাকে। ২০১৫ সালে প্রতিবেশী দেশ মন্টিনিগ্রোর সঙ্গে স্বাক্ষরিত সীমান্ত নির্ধারণ সংক্রান্ত একটি চুক্তির ওপর ভোটাভুটির প্রস্তুতি নেয়ার সময় এই গ্যাস নিক্ষেপ করা হয়।

এ সময় টিয়ারগ্যাসে গোটা পার্লামেন্ট ভবন আচ্ছন্ন হয়ে যায় এবং পার্লামেন্ট সদস্যরা অধিবেশন থেকে বেরিয়ে যেতে বাধ্য হন। তবে শেষ পর্যন্ত স্পিকারের অনড় অবস্থানের কারণে ১২০ আসনের পার্লামেন্টে বুধবার বিলটির ওপর ভোটাভুটি হয় এবং চুক্তিটি ৮০-১১ ভোটে অনুমোদিত হয়।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের পক্ষ থেকে ভিসামুক্ত ভ্রমণ সুবিধা পাওয়ার জন্য কসোভোকে দু’টি শর্ত দেয়া হয়েছে। শর্তগুলো হচ্ছে, মন্টিনিগ্রোর সঙ্গে সীমানা নির্ধারণের চুক্তি চূড়ান্ত করতে হবে এবং সার্বিয়ার সঙ্গে বিবাদ মিটিয়ে ফেলতে হবে।

সার্বিয়া থেকে আলাদা হয়ে যাওয়া মুসলিম দেশ কসোভোর স্বাধীনতাকে এখনো স্বীকৃতি দেয়নি সার্বিয়া। তবে মন্টিনিগ্রো কসোভোর স্বাধীনতাকে স্বীকৃতি দিয়ে সীমান্ত নির্ধারণের চুক্তি অনুমোদন করেছে।

কিন্তু কসোভোর বিরোধীদল ২০১৫ সালে স্বাক্ষরিত ওই চুক্তি এই বলে

Related Articles

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker