ট্রেন্ডিং খবরপ্রযুক্তিহোমপেজ স্লাইড ছবি

কম দামি স্মার্ট ফোনের বাজারে স্যামসাং গ্যালাক্সি “এম ১০”

আবদুল্লাহ আল মুনতাসির: বিশ্ব জুড়ে ফোনের বাজারে  স্যামসাং এর আধিপত্য। পুরো পৃথিবীতে যত গুলো ফোন ব্যবহৃত হয় তার শতকরা প্রায় ৩০ ভাগই  স্যামসাং এর। আর স্মার্ট ফোনের দিক শুধু হিসাব করলে শতকরা ২০ ভাগ  স্যামসাং দখলে। কিন্তু এর পরিবর্তন ঘটতে যাচ্ছে বলে অনেকে মনে করছেন। এর কারণ স্যামসাং এর “এম সিরিজ”। ধারণা করা হচ্ছে, কম দামি ফোন এর যে বিশাল একটি চাহিদা রয়েছে তার দিকে আরও জোরালো ভাবে মনোনিবেশ করবে স্যামসাং এবং তারই নমুনা “এম ১০”। এ বছরের জানুয়ারি মাসে রিলিজ পাওয়া এই ফোন বাংলাদেশে অফিশিয়ালি পিকাবু ডট কম ওয়েবসাইটের মাধ্যমে কিনতে পাওয়া যাচ্ছে।

বিল্ড
পলি কার্বোনেট বা প্লাস্টিক এর তৈরি স্যামসাং এম ১০। এক্সিনোস ৭৮৭০ অক্টা কোর প্রসেসর এর সাথে পাওয়া যাবে ফোনটি। ২জিবি র‍্যাম+১৬জিবি স্টোরেজ এবং ৩জিবি র‍্যাম+৩২জিবি স্টোরেজ এর দুটি ভার্শনে ইন্ডিয়াতে পাওয়া গেলেও বাংলাদেশে অফিসিয়ালি শুধু প্রথম ভার্শনটি পাওয়া যাচ্ছে। তবে ভয়ের কিছু নেই কারণ ৫১২জিবি পর্যন্ত মাইক্রো এসডি কার্ড সাপোর্ট করবে এই ফোনে, যার জন্য থাকছে ডেডিকেটেড কার্ড স্লট। থাকছে ডুয়াল ন্যানো সিম কার্ড স্লটও। অ্যান্ড্রয়েড অরিও এর উপর সামসাং এক্সপেরিএন্স ইউআই এর একটি লাইট ভার্শন চলবে, যদিও অ্যান্ড্রয়েড ওয়ান চললে ভাল হতো। উল্লেখ্য যে এই ফোনে কোন ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর না থাকলেও সফটওয়্যার এর মাধ্যমে ফেইস আনলক এর ব্যবস্থা রেখেছে সামসাং। দিনের বেলা মোটামুটি ভালই কাজ করে তবে অন্ধকার হলে আপনি এক রকম ধরাশায়ী। তখন আলোর ব্যবস্থা করতে হবে অথবা পাস কোড দিয়ে ফোন খুলতে হবে।

ডিসপ্লে
২০১৯ সালে ডিসপ্লে মানেই নচ। সামসাং এই নচের নাম দিয়েছে “ইনফিনিটি ভি”। ৬.২২ ইঞ্চি স্ক্রীনের এম ১০ ফোনটি এই ইনফিনিটি ভি ডিসপ্লের সাথে পাওয়া যাবে। টিএফটি টাচ স্ক্রীন ডিসপ্লে থাকছে যাতে ৭২০X১৫২০ পিক্সেল রেজোলিউশান পাওয়া যাবে। যথেষ্ট ব্রাইট এই ডিসপ্লে তে যেকোনো এইচডি ভিডিও বা ছবি আরামেই উপভোগ করতে পারবেন। বিশেষত এই প্রাইজ রেঞ্জ এ এমন ডিসপ্লে যথেষ্ট ভালো।

ক্যামেরা
মেইন ক্যামেরা হিসেবে থাকছে ১৩ মেগাপিক্সেলের একটি এবং ৫ মেগাপিক্সেলের একটি ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা। ছবি কালারফুল আসলেও কিছুটা হলদে ভাব আছে। ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরাটি ৫ মেগাপিক্সেল হিসেবে ভালই পারফর্ম করে। ভিডিও স্ট্যাবিলাইজেশান নেই তবে ভিডিও রেকর্ডিং এর মান ভালই। পোর্ট্রেইট মোড তেমন একটা রিফাইন লাগেনি তবে এই বাজেটের ফোনে এই মোডের ব্যবস্থা করেছে তাই বেশি।

ব্যাটারি
কম দামি ফোন হলেও বড়সড় ব্যাটারি পাবেন এম ১০ এ। ৩৪০০ মিলি অ্যাম্প এর ব্যাটারি থাকছে এই ফোনে। ফাস্ট চার্জিং নেই তবে ২.৫ ঘণ্টায় ফুল চার্জ হয়ে যাবে এই ফোন। মোটামুটি ব্যবহারে সারাদিন চার্জ নিয়ে চিন্তা করা লাগবেনা তবে খুব হেভি ইউজ করলে দিনের শেষ অংশে টান পরতে পারে। অনেকক্ষণ ব্যবহার করলে কিছুটা গরম হয়ে যায় ফোনটি।

দাম
অফিসিয়ালি পিকাবু ডট কমে পাওয়া যাচ্ছে ফোনটি ৮% ডিস্কাউন্টে ১০,৯৯৯ টাকায়। যদিও ফোনটি বর্তমানে সোল্ড আউট তবে ওয়েবসাইটে এমন অপশন রাখা হয়েছে যেন আপনি ম্যাসেজের মাধ্যমে জানতে পারেন ফোনটি আবার কখন পাওয়া যাচ্ছে।

মাইক্রো ইউএসবি পোর্ট পাওয়া যাবে ফোনে তাই ইউএসবি টাইপ সি এর অভাব বুঝতে পারবেন। হেডফোন জ্যাক দিতে ভুল করেনি কিন্তু স্পিকার দিয়েছে ব্যাক সাইডে যার ফলে ফোনটি কোথাও রাখলে স্পিকার গ্রিল ব্লক হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা প্রচুর। তবে ওভার অল ফোনটি ১০ হাজারের বাজেটে খারাপ না। তার উপরে পাচ্ছেন সামসাং এর ব্র্যান্ড ভ্যালু।

Related Articles

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker