মঙ্গলবার, ২৩ মে ২০১৭
webmail
Thu, 12 Jan, 2017 02:39:18 PM
নতুন বার্তা ডেস্ক

নয়া দিল্লি: প্রাক্তন আর বর্তমান, দুই অধিনায়কেরই তিনি তুরুপের তাস। ম্যাচ জেতানো স্পিনার। মহেন্দ্র সিংহ ধোনি এবং বিরাট কোহালির ক্যাপ্টেন্সির বিশেষত্বের তুলনা করলেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন। পুনেতে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথম ওয়ানডে ম্যাচের চার দিন আগে বুধবার শহরে পৌঁছে।

মানসিকতা

• বিরাট আক্রমণ করতে ভালোবাসে। উইকেট তুলতে যদি বাড়তি কিছু রান খরচ করতে হয়, তাতেও ওর আপত্তি নেই।    

• ধোনি সুযোগ বুঝে আক্রমণাত্মক হতো। চাইত বোলাররা আঁটসাঁট থাকুক। ওর মাথার ভেতর সব সময় রান রেটের হিসেব থাকত যেন।

বোঝাপড়া

• এ ব্যাপারে মহেন্দ্র সিংহ ধোনি এগিয়ে। কারণ মাহি উইকেটকিপার। বিপক্ষের গোটা ইনিংসে উইকেটের পিছনে দাঁড়িয়ে প্রতিটা ব্যাটসম্যানের গতিবিধি সবচেয়ে ভাল ভাবে নজরে রাখতে পারে। আর সেই মতো নিজের বোলারদের গুরুত্বপূর্ণ টিপস দেয়। এ ভাবেই মাহি এগিয়ে নিয়ে গিয়েছে ইন্ডিয়াকে।

• বিরাট অবশ্য শর্ট কভারে দাঁড়ায়। ব্যাটসম্যানের থেকে সেটাও খুব একটা দূরে নয়। আমরা বোলাররা সে ভাবেই ওর সঙ্গে যোগাযোগ রাখি। আমাকে অবশ্য তার জন্য একটু অ্যাডজাস্ট করতে হয়েছে। মাহির থেকে যেহেতু ব্যাপারটা অন্য রকম।

সীমিত ওভারের ম্যাচে নেতৃত্ব

• দু’টো আলাদা ফর্ম্যাটে ক্যাপ্টেন্সি করাটা মূলত মানসিকতার পরিবর্তন। ধোনির ইদানীং এ ব্যাপারটা করার প্রয়োজন পড়েনি। কারণ ও টেস্ট ক্যাপ্টেন্সি ছেড়ে দিয়েছিল। ফলে এক ধরনের মানসিকতা নিয়ে চলতে পারত।

• বিরাটের সেই সুযোগ আর এখন থেকে থাকছে না। আমি নিশ্চিত, এটা ওর কাছে একটা চ্যালেঞ্জ হতে চলেছে। বিরাট গত এক বছরেরও বেশি নানা দেশের বিরুদ্ধে টানা টেস্ট ক্যাপ্টেন্সি করে আসছে। সেখান থেকে সীমিত ওভারের ফর্ম্যাটের নেতৃত্বের সঙ্গে মানিয়ে নেওয়াটা গোড়ার দিকে একটু চ্যালেঞ্জিং তো হবেই। তবে উইকেট তুলতে ওর বাড়তি কিছু রান খরচ করার আইডিয়াটা খারাপ নয়।

নতুন বার্তা/ওএফএস
 


Print
আরো খবর
    সর্বশেষ সংবাদ


    শিরোনাম
    Top